জাতীয় পুরস্কার পেয়েও যোগ্য সম্মান পাননি এই নায়িকা

0
78

 

না টলিউডে দাপিয়ে কাজ তিনি কোনোও দিনই করেননি, কিন্তু যতটুকু করেছেন ততটুকু আজও ভুলতে পারেনি দর্শকেরা। আজ কথা বলব অভিনেত্রী অনন্যা চ্যাটার্জির (Ananya Chatterjee) সম্পর্কে। ধারাবাহিক ‘ সুবর্ণলতা’ (Subarnalata)-এ তাঁর অনবদ্য অভিনয় আজও হার মানাবে একালের যেকোনোও জনপ্রিয় টেলি তারকাকে।

Advertisement

তবে আজ এত প্রতিভাবান অভিনেত্রীকে পর্দায় আর দেখা যায়না। শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রী হিসেবে জাতীয় পুরস্কার পেয়েছিলেন অনন্যা চ্যাটার্জি, কিন্তু কোনোও এক অজ্ঞাত কারণে আজ তিনি টলিউডে ব্রাত্য।

এর কারণ কি রাজনীতি না অন্যকিছু সেই নিয়ে প্রশ্ন রয়েই যায়। ১৯৭৭ সালের ১৬ ই জানুয়ারি কলকাতায় জন্ম তাঁর। যোগমায়া দেবী কলেজ থেকে বায়োলজিতে স্নাতক হওয়ার পর মমতা শঙ্করের ডান্স অ্যাকাডেমি থেকে নাচ শিখেছিলেন তিনি। ঠিক সেই সময় থেকেই ছোট পর্দায় অভিনয়ের সুযোগ পান অনন্যা। অভিনেত্রীর প্রথম ধারাবাহিক ‘দিন প্রতিদিন’।

এরপর ‘তিথির অতিথি’, ‘আলেয়া’ র মতো ধারাবাহিক করে টলিপাড়ায় নিজের জায়গা পোক্ত করেন অভিনেত্রী। ধারাবাহিকের পাশাপাশি অসংখ্য টেলিফিল্মেও তার চোখ জোড়ানো অভিনয় দেখার সুযোগ মিলেছে দর্শকদের। এরপর ২০০২ সালে বসু চ্যাটার্জি পরিচালিত ‘টক ঝাল মিষ্টি’ ছবির মাধ্যমে বড় পর্দায় অভিষেক করেন অনন্যা।‘

রাত বারোটা পাঁচ’ ছবিতেও অনন্যার অভিনয় উচ্চ প্রশংসা কুড়িয়েছিল। এরপর ২০০৯ সালে নিজের গন্ডী থেকে বেরিয়ে আদ্যপ্রান্ত বানিজ্যিক ছবি ‘মামা ভাগ্নে’তে অভিনয় করেন তিনি। তবে এরপর আর কমার্সিয়াল ছবিতে দেখা মেলেনি তাঁর।

Advertisement

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে