দ্বিতীয় বছরের অতিমারি অনেক বেশি প্রাণঘাতী হতে চলেছে : সতর্কবার্তা হু-এর প্রধানের

0
84

২০২০ সালের তুলনায় ২০২১ সালে বিশ্বজুড়ে ভয়াবহ আকার ধারণ করতে পারে অতিমারি করোনা। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার ডিরেক্টর জেনারেল বলেন, আমরা দেখতে পাচ্ছি, প্রথম বছরের তুলনায় দ্বিতীয় বছরে অতিমারি অনেক বেশি প্রাণঘাতী হতে চলেছে। ইতিমধ্যেই ভারতে করোনার সংক্রমণ পরিস্থিতি খুবই উদ্বেগজনক। মৃত্যু ও হাসপাতালে ভর্তির সংখ্যা যেভাবে বাড়ছে তা যথেষ্ট চিন্তার বলেই মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা। অপরদিকে ইউরোপ এবং আমেরিকায় করোনা সংক্রমণ কিছুটা নিয়ন্ত্রণে আসলেও, করোনার ভারতীয় প্রজাতি চিন্তায় ফেলেছে সেই দেশের প্রশাসনকে।

ভারতের পাশাপাশি আরও বেশ কিছু রাষ্ট্র নিয়ে চিন্তা প্রকাশ করেছেন বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রধান ট্রেডস অ্যাডানম গেব্রিয়েসাস। ট্রেডস বলেন, নেপাল, কম্বোডিয়া, ভিয়েতনাম, শ্রীলংকা ও মিশরেও লাফিয়ে বাড়ছে করোনা সংক্রমণ। এই পরিস্থিতিতে আগামী জুলাই মাসে টোকিওতে বসতে চলা অলিম্পিকের আসর আরও বেশি ভাবাচ্ছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাকে। যদিও করোনার এই পরিস্থিতিতে জাপানের নাগরিকরাও অলিম্পিক নিয়ে বহু প্রশ্ন তুলেছেন বলেই সূত্রের খবর।

এত চিন্তার মাঝেও মিলেছে স্বস্তির খবর। গত কয়েকদিনে ভারতে সংক্রমনের গ্রাফ কিছুটা নিম্নগামী হয়েছে বলেই জানা গেছে। ভারত সামগ্রিকভাবে দ্বিতীয় ঢেউয়ের শিখর পেরিয়ে গেছে বলেই জানাচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা। তবে আতঙ্ক এখনও কাটেনি। হু-এর প্রধান জানিয়েছেন, একমাত্র টিকাকরন পদ্ধতিই পারে করোনা থেকে সম্পূর্ণভাবে রেহাই দিতে। ভারত সরকারের প্রয়োজন টিকাকরণ পদ্ধতির গতি যত শীঘ্রই সম্ভব বাড়িয়ে তোলা।

By Sukanya

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে