বিজেপির মেগা বৈঠকে যোগ দিলেন না রাজীব-কৈলাস, রাজনৈতিক মহলে জল্পনা

0
74

রাজীবের তৃণমূলে প্রত্যাবর্তনের সম্ভাবনা সম্প্রতি জোরালো হচ্ছিল। আজ হেস্টিংসে বিজেপির রাজ্য দপ্তরের মেগা বৈঠকে যোগ দিলেন না রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়, এমনকী ভার্চুয়াল উপস্থিতিও এড়িয়ে গেলেন। ফলে রাজনৈতিক মহলে রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়ের তৃণমূলে ফেরার জল্পনা আরও বেড়ে গেল।

এর পাশাপাশি অনুপস্থিত থেকে চর্চা বাড়িয়েছে কৈলাস বিজয়বর্গীও। ভোটপর্ব মিটতেই বঙ্গ-বিজেপির সাথে কোনোরূপ সম্পর্ক রাখেননি তিনি। রাজ্য বিজেপির এক শীর্ষ নেতার কথায়, “এক সময়ে উনি নিজে সপ্তাহে দু’-তিন বার ফোন করতেন। বিধানসভা ভোটের ফল ঘোষণা হওয়ার পর থেকে আমরা ফোন করলে কৈলাসজি ফোন তোলেন না। এমনকী, হোয়াটসঅ্যাপ মেসেজ করলে তার জবাবও দেন না।”

রাজীবের অনুপস্থিতি নিয়ে প্রশ্ন করা হলে, বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বলেন, “তাকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছিল। লিঙ্ক পাঠানো হয়েছিল। কেন এলেন না তা বলা সম্ভব নয়। এ বিষয়ে এখনও রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়ের কোনোও প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।”

প্রসঙ্গত, ভোট বিপর্যয়ের পর দলের অবস্থান নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন রাজীব। একই সঙ্গে কুণাল ঘোষের সঙ্গে তার বৈঠক রাজনীতিতে জল্পনা আরও বাড়িয়ে দেয়। পাশাপাশি পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের মতো তৃণমূল নেতার বাড়িতেও তাকে যেতে দেখা যায়। যদিও এই ঘটনা গুলিকে ‘নিছক সৌজন্যের’ আওতায় ফেলেছেন রাজীব। কিন্তু রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা অনুমান করেছিল, রাজীব চাইছিলেন তাকে গ্রহণ করুক তৃণমূল, তার প্রতি নমনীয়তা দেখাক দল। তবে এসব করেও রাজীব ব্যানার্জির তৃণমূলে ফেরার পথ মসৃণ হয়নি। ডোমজুড়, সলপ এলাকায় প্রায় রাজীবের বিরুদ্ধে পোসটার দিচ্ছে তৃণমূল কর্মীরা। এমনকী রাজীবকে তৃণমূলে ফেরাতে আপত্তি জানিয়েছে হাওড়ার একাধিক তৃণমূল বিধায়ক।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে