জগদীপ ধানকরকে সরিয়ে আনা হবে মুখ্যমন্ত্রীকে, আচার্য পদ ঘিরে জোর জল্পনা শিক্ষামহলে

0
17

রাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয়ের আচার্য পদ থেকে রাজ্যপালকে সরিয়ে দেওয়ার কথা ভাবছে রাজ্য সরকার। জল্পনা সেই পদে আনা হবে মুখ্যমন্ত্রীকে। সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে এমনই জানালেন শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত্য বসু।

Advertisement

এদিন সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, “তিনি দিনের পর দিন এ ভাবে ফাইল ফেলে রাখেন। তিনি বিন্দুমাত্র সহযোগিতার মনোভাব যদি না দেখান, তা হলে কেরলের রাজ্যপাল যেমন বলেছেন, প্রাদেশিক স্তরে আমরাও তা করতে বাধ্য হব। সংবিধান খতিয়ে দেখব, দরকারে আইনজ্ঞদের পরামর্শ নেব। আমরা আইনজীবীদের কাছে জানতে চাইব, অন্তবর্তিকালীন সময়ের জন্য রাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর আচার্য পদে আমরা মাননীয় মুখ্যমন্ত্রীকে নিয়ে আসতে পারি কি না।”

উল্লেখ্য, রাজ্যপালের সঙ্গে নবান্নের মতবিরোধ নতুন কিছু নয়। সম্প্রতি রাজ্যপাল রাজ্যের সমস্ত বিশ্ববিদ্যায়ের উপাচার্যকে ডেকে পাঠালে তা নিয়ে নতুন করে সঙ্ঘাতের পরিস্থিতি তৈরি হয়। এরপর রাজ্যপাল একের পর এক টুইটে দাবি করতে থাকেন, কিন্তু তার ডাকে কোনও সাড়া দিচ্ছেন না রাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর উপাচার্যরা। জগদীপ ধানকরের অভিযোগ শাসকের অঙ্গুলি হেলনেই এমনটা হচ্ছে বলেও অভিযোগ করেছিলেন। এর পরিপ্রেক্ষিতেই শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত্য বসুর প্রতিক্রিয়া জানতে চাওয়া হয় সাংবাদিক বৈঠকে।

আর উল্লেখযোগ্য বিষয় হল এই প্রসঙ্গে ব্রাত্যর মুখে উঠে আসে সিপিএম শাসিত কেরলের রাজ্যপালের সাম্প্রতিক মন্তব্যের কথা। কেরলের রাজ্যপাল আরিফ মহম্মদ খান বলেছিলেন, ওই রাজ্যে সমস্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের আচার্যের পদে যেন মুখ্যমন্ত্রী বিজয়নকে আনা হয়।

Advertisement

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে