Uttarpradesh: ভাইরাল লখিমপুরের কৃষক হত্যার হাড়হিম করা ভিডিও।‘এটা রামরাজ নয়, কিলিং রাজ’ বিজেপির বিরুদ্ধে তোপ দাগলেন মমতা।

0
39

সোমবার রাত থেকে সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল ২৫ সেকেন্ডের হারহিম করা একটি ভিডিও। কৃষকরা মিছিলে দাঁড়িয়ে স্লোগান দিচ্ছে, হঠাৎ পেছেন থেকে এসে একটি কালো এসইউভি ধাক্কা দিয়ে চলে যাচ্ছে কৃষকদের। গাড়ির বনেটে ধাক্কা লেগে মাটিতে লুটিয়ে পড়লেন কিছু কৃষক। বাকিরা পালানোর চেষ্টা করছেন। এই ভাইরাল হওয়া ভিডিওটিই লখিমপুর খেরির বিক্ষোভের সময় তোলা বলে দাবী করা হচ্ছে। ভিডিওর সত্যতা নিয়ে পুলিশ এখনো মুখ না খুললেও কৃষকদের দেওয়া বয়ানের সাথে মিলে যাচ্ছে এই ভিডিও।

রবিবার উত্তরপ্রদেশে লখিমপুরের খেরিতে কৃষকরা মিছিল করে বিক্ষোভ দেখাচ্ছিলেন। এমন সময় একটি গাড়ি এসে মিছিলের ওপর দিয়ে কৃষকদের ধাক্কা দিয়ে চলে যাচ্ছে পেছনেই আরও একটি গাড়ি সাইরেন বাজিয়ে চলে যাচ্ছে ভিড়ের মধ্যে দিয়েই। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী অজয়কুমার মিশ্রের ছেলে আশিস মিশ্রের গাড়িটি কৃষকদের ধাক্কা মারে বলে অভিযোগ এমনকি গাড়িটি তিনিই চালাচ্ছিলেন বলে অভিযোগ ওঠে। যদিও ভিডিওতে কে গাড়ি চালাচ্ছিলেন তা স্পষ্ট নয়। কৃষকদের বয়ান অনু্যায়ী গাড়ির রং, মডেল এবং সমস্ত বর্ণনাই মিলে যাচ্ছে। ভিডিওটি লখিমপুরের বলেই দাবী করছে কংগ্রেসে। ঘটনায় মোট ৪ জন কৃষক মৃত্যু হয়েছে। সংযুক্ত কিষাণ মোর্চার তরফ থেকে জানানো হয়েছে মৃতেরা হলেন নাচাত্তর সিং (৬০), দলজিৎ সিং (৩২), লাভপ্রীত সিং (২৪) ও গুরবিন্দর সিং(২০)।

এই ঘটনায় আশিসের বিরুদ্ধে খুনের মামলা দায়ের করা হয়েছে। মন্ত্রী অজয়কুমার মিশ্র তার ছেলের বিরুদ্ধে আনা সমস্ত অভিযোগ মিথ্যে বলে দাবী করেন তিনি বলেন তার ছেলে আশিস সেই সময় গাড়িতেই ছিলেন না। কৃষকরা মৃতদেহ ঘিরে সারা রাত বিক্ষোভ দেখানোর পর সোমবার সকালে সরকারের তরফ থেকে প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয় মৃতদের পরিবার পিছু ৪৫ লক্ষ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দেওয়া হবে ও আহতদের ১০ লক্ষ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দেওয়া হবে। এছাড়ায় ঘটনায় দোষীদের উপযুক্ত শাস্তি দেওয়া হবে বলে প্রতিশ্রুতি দেয় যোগী সরকার। লখিমপুরের খেরিতে গাড়ির ধাক্কা ও গুলি চালানো, মোট দুটি ঘটনায় ৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। এই ঘটনার পরে উত্তেজনা ছড়িয়েছে সারা দেশ জুড়েই। সরকার ইতিমধ্যে লখিমপুরে ১৪৪ ধারা জারি করেছে। লখিমপুরে যাওয়ার পথে বারবার বাধা দেওয়া হয় প্রিয়াঙ্কা গান্ধীকে পরে তাকে আটক করে পুলিশ। লখিমপুরের ঘটনা নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বিজেপির বিরুদ্ধে তীব্র আক্রমণ করে বলেন “খালি বলছে রাম রাজ চলছে। থোড়াই রামরাজ চলছে। এটা কিলিং রাজ চলছে”। লখিমপুরে তৃনমূলের ৫ প্রতিনিধি দল গেলে তাদেরকেও ভেতরে ঢুকতে দেয় নি পুলিশ।

News By Tania

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে